করোনা নিয়ে প্যারাগ্রাফ লিখলেই মামলা থেকে মুক্তি



লকডাউন কার্যকর করার জন্য সিংড়া থানার বিভিন্ন এলাকার সড়ক পথে চলাচলকারী মোটরসাইকেল এবং অন্যান্য মোটরযানের বৈধ কাগজপত্র যাচাই বাছাই শেষে সড়ক পরিবহন আইনে মামলা দায়ের করা হচ্ছে। এছাড়া বৈধ কাগজপত্র থাকা সত্ত্বেও যারা বিনা প্রয়োজনে বাড়ি থেকে বের হয়েছেন তাদের ‘করোনা ভাইরাস সংক্রমণের ঝুঁকি এবং প্রতিরোধে করণীয়’ শীর্ষক প্যারাগ্রাফ লেখার পর ছেড়ে দেয়া হচ্ছে।

করোনা ভাইরাস সংক্রমণ ঝুঁকি থেকে জনগণকে মুক্ত করার জন্য নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে বাংলাদেশ পুলিশ। মানুষকে ঘরে রাখতে নানা উদ্যোগ নিতে হচ্ছে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে। কিছু কিছু ব্যতিক্রমী উদ্যোগ ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি করেছে। ঠিক তেমনই একটি ব্যতিক্রমী উদ্যোগ নিয়েছে সিংড়া সার্কেলের নেতৃত্বে থানা পুলিশের একটি উদ্যোগ।

সিংড়া সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার জামিল আকতার জানান, নতুন সড়ক আইনে আমরা জরিমানা করছি। দুই দিনে আমরা শতাধিক লাইসেন্সবিহীন মোটরসাইকেল জব্দ করেছি। এরপরে মোটরসাইকেল আরোহীরা হেলমেট এবং কাগজপত্র সঙ্গে নিয়ে বের হচ্ছেন। তাই যারা জরুরি প্রয়োজন ছোড়া বের হচ্ছেন তাদের আমরা এ প্যারাগ্রাফ লেখার পরে ছেড়ে দেয়ার উদ্যোগ নিয়েছি। এক্ষেত্রেও আমরা সর্তকতা অবলম্বন করছি এবং আরোহীদের সার্জিকাল মাস্ক, হ্যান্ড স্যানিটাইজার ব্যবহার এবং সোশ্যাল ডিসটেন্স মেনে চলার পরামর্শ দিচ্ছি। গত দুই দিনে প্রায় ২০ জন মোটরসাইকেল আরোহীকে এ প্যারাগ্রাফ লেখার মাধ্যমে সংক্রমণ সম্পর্কে সচেতন করা এবং ঘরের বাহিরে বের না হওয়ার বিষয়ে সতর্ক করা হয়েছে।