Breaking News

নিহ’তদের পরিবারকে ১২ লাখ টাকা সহায়তা দিলো হেফাজত



ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সফরের বিরোধিতাকে কেন্দ্র করে সংঘ’র্ষে দেশজুড়ে হেফাজতের ১৯ জন কর্মী নি’হত হয়েছেন বলে জানিয়েছে সংগঠনটি। এরমধ্যে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ১৫ জন এবং চট্টগ্রামে ৪ জন।

সংঘ’র্ষ এবং হতাহতের ঘটনার ১৪ দিন পর শনিবার (১০ এপ্রিল) ব্রাহ্মণবাড়িয়ার ঐতিহ্যবাহী জামিয়া ইউনুছিয়ায় যান সংগঠনটির যুগ্ম-মহাসচিব ও ঢাকা মহানগরীর সভাপতি জুনায়েদ আল হাবিব ও সাংগঠনিক সম্পাদক আজিজুল হক ইসলামা’বাদীসহ কেন্দ্রীয় নেতারা। এসময় সেখানে নিহ’ত ১৫ জনের পরিবারকে সংগঠনের পক্ষ থেকে ৫০ হাজার টাকা করে মোট সাড়ে সাত লাখ টাকা আর্থিক সহায়তা দেওয়া হয়।

হেফাজতের একাধিক কেন্দ্রীয় নেতা জানান, সংগঠনের আমির আল্লামা জুনায়েদ বাবুনগরীর নির্দেশে ঘটনার পরই ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের জন্য ফান্ড সংগ্রহ করা হয়। কিন্তু মামুনুল হকের রিসোর্টকাণ্ডে নিহত পরিবারের কাছে আর্থিক সহায়তা পৌঁছাতে দেরি হয়।

এদিকে লালখান মাদ্রাসার শিক্ষক মুফতি হারুন ইযহারের ব্যক্তিগত উদ্যোগে তহবিল সংগ্রহ করে চট্টগ্রামে নি’হত ৪ পরিবারকে ৪ লাখ ৪১ হাজার টাকা তুলে দেওয়া হয়।

তিনি জানান, এটি হেফাজতের তহবিল থেকে নয়। মুসুল্লিদের দান দিয়ে প্রথমে হাটহাজারীর ছাত্র নাসরুল্লাহ’র বাবার হাতে ১ লক্ষ, রাউজানের শহীদ ওয়াহীদুল ইসলামের বাবার হাতে শায়খ ১ লক্ষ ও ৭ মাসের বাড়ি পরিশোধ করে দেয়া হয়। কুমিল্লার রবিউল ইসলামের পরিবারকে ১ লাখ ৩০ হাজার টাকা এবং মাদারীপুরের মেরাজুল ইসলামের পরিবারকে ১ লাখ টাকা দেয়া হয়। এছাড়া যাঁরা আহত হয়েছেন তাঁদের চিকিৎসার খরচ দেয়া হচ্ছে।এদিকে রবিবার (১১ এপ্রিল) কর্ণপাড়া জামিয়া ইসলামিয়া দারুল উলুম মাদ্রাসার শিক্ষক আফসার মাহমুদের উদ্যোগ ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় অর্থ সহায়তা করার কথা রয়েছে।