Breaking News

৭ দিন কেউ ঘর থেকে বাহির হবেন না: জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী



জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন বলেছেন, চলতি মাসের ১৪ এপ্রিল থেকে পুরো দেশে কঠোর লকডাউনের ঘোষণা করতে যাচ্ছে সরকার। লকডাউন চলাকালীন সময়ে জরুরি সেবা ব্যাতিত অফিস-আ’দালত-কলকারখানা সবকিছু বন্ধ থাকবে।
শুক্রবার (৯ এপ্রিল) দুপুরে তিনি গণমাধ্যমকে এ তথ্য জানান।তিনি বলেন, ১৪ থেকে ২০ এপ্রিল পর্যন্ত একসপ্তাহের জন্য আম’রা কঠোর লকডাউনে যাচ্ছি। এটি হবে পরিপূর্ণ লকডাউন। যেখানে মানুষজন আমাদের সহায়তা করবে করোনা থেকে রক্ষা পেতে লকডাউন কার্যকর হতে। বাসায় থাকবেন, বাইরে যাবেন না। চলাফেরা থেকে প্রত্যেক ক্ষেত্রেই সংযত আচরণ করতে হবে।

তিনি বলেন, করো’না ঠেকাতে গত ২৯ মা’র্চ থেকেই মানুষকে সতর্ক করা হচ্ছে। ৪ এপ্রিলের প্রজ্ঞাপনের মাধ্যমেও জনমত তৈরি, মাস্ক পরা, স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলাসহ নানা নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। তবে, যেভাবে করো’নাভাই’রাসের বিস্তার ঘটছে, কঠোর লকডাউনের মাধ্যমেই এটি ঠেকাতে হবে বলে বিশেষজ্ঞরা পরাম’র্শ দিয়েছেন।

তিনি আরো বলেন, মানুষ বুঝতে পেরেছে করো’নাভাই’রাসের এই সংক্রমণ কমাতে হলে লকডাউন প্রয়োজন। জনস্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞসহ সংশ্লিষ্ট সবাইও এই পরাম’র্শই দিয়েছেন। সবার চিন্তাভাবনা-পরাম’র্শ বিবেচনায় নিয়েই প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনায় এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হচ্ছে।

দোকানপাট খোলা রাখার ব্যাপারে ব্যবসায়ীদের আ’ন্দোলন নিয়ে এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, তাদের জন্য মা’র্কেট খোলা রাখা হয়েছে ১৩ এপ্রিল পর্যন্ত। এরপরই এক সপ্তাহ কড়া লকডাউন প্রয়োজন। কড়া লকডাউন না হলে করো’নার বিস্তার ও মৃ’ত্যুর সংখ্যা ঠেকানো যাবে না।

এর আগে, দেশে করো’না সংক্রমণ ভ’য়াবহ রূপ নেওয়ায় ১৪ এপ্রিল থেকে আরো এক সপ্তাহের লকডাউনের কথা ভাবছে সরকার বলে জানিয়েছিলেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। শুক্রবার সকালে সরকারি বাসভবন থেকে ব্রিফিংকালে তিনি এ কথা জানান।