Breaking News

৯৯৯ এ ফোন: ইটভাটা থেকে শিকল বাঁধা ৪ শ্রমিক উদ্ধার



বান্দরবান সদর উপজেলার কক্ষ্যাং পাড়া এলাকার এফবিএম ইটভাটায় শ্রমিকদের শিকল দিয়ে বেঁধে অত্যাচার করা অভিযোগ উঠেছে। জরুরি সেবা ৯৯৯ নাম্বার এ ফোন পেয়ে পুলিশ শিকলে বাঁধা অবস্থায় ইটভাটার ৪ শ্রমিককে উদ্ধার করেছে। আর এ ঘটনায় ৭ জনকে আটক করা হয়েছে।

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, গত সোমবার রাতে বান্দরবান সদর থানা পুলিশ এফবিএম ইটভাটা অভিযান চালিয়ে আহত অবস্থায় ইটভাটার ৪ শ্রমিককে শিকল বাঁধা অবস্থায় উদ্ধার করে সদর থানায় নিয়ে আসা হয়। তারা হলেন: নোয়াখালী জেলার বাসিন্দা মো. আবুল কালাম, মো. রিয়াজ, মো. খলিল ও মো. রুবেল।

এদিকে এ ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে ইটভাটার মাঝিসহ ৭ জনকে আটক করেছে পুলিশ। আটককৃতরা হলেন: জাহাঙ্গীর আলম, সাধন চন্দ্র দাশ, মো. শাহাদাৎ হোসেন, মো. জাফর উদ্দিন, মো. জসিম উদ্দিন, নুরুল ইসলাম, মেরহাজ হোসেন। এ বিষয়ে বান্দরবান সদর থানায় একটি মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

উদ্ধারকৃত শ্রমিক আবুল কালাম বলেন, আমাদের কাজ করিয়ে টাকা না দিয়ে ইটভাটার মাঝি অনেকদিন ধরে শেকল দিয়ে বেঁধে রেখে নির্যাতন করে আসছে। এফবিএম ইটভাটাটি বান্দরবান শহরের টেক্সটাইল মিলনের বলে জানান এ শ্রমিক।

বান্দরবানে ৭টি উপজেলায় অর্ধশতাধিক ইটভাটায় প্রতিনিয়ত শ্রমিকদের আটকে রেখে নির্যাতন করা হয় বলে বিভিন্ন সময় অভিযোগ পাওয়া যায়।

বান্দরবান সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. শহিদুল ইসলাম চৌধুরী বলেন, আটকে রেখে তাদের নির্যাতন করার অভিযোগে মামলা দায়ের হবে। আদালতের মাধ্যমে তাদের কারাগারে পাঠানো হবে।