খালেদা জিয়ার মুক্তির মেয়াদ বাড়াতে আবেদন করবে পরিবার

বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার বিশেষ বিবেচনায় পাওয়া মুক্তির মেয়াদ বাড়ানো ও বিদেশে চিকিৎসার জন্য অনুমতি চেয়ে সরকারের কাছে আবেদন করবে পরিবার। একথা জানিয়েছেন তার আইনজীবী ও বিএনপি নেতা ব্যারিস্টার মাহবুবউদ্দিন খোকন।

আইনমন্ত্রী জানিয়েছেন, আবেদন করলে পুনর্বিবেচনার সুযোগ আছে। দূ’র্নীতির মা’মলায় দ’ণ্ডপ্রা’প্ত খালেদা জিয়া ২৫ মাস কারাভোগ করে গেলো ২৫শে মার্চ সরকারের নির্বাহী আদেশে ৬ মাসের জন্য মুক্তি পান। শর্ত ছিল, এই সময়ে তিনি বাসায় থেকে চিকিৎসা নেবেন, যেতে পারবেন না দেশের বাইরে।

তার আইনজীবীরা বলছেন, খালেদা জিয়া করোনা মহামারির মধ্যে মুক্তি পেয়েছেন। তাই চিকিৎসার বিষয়ে কোনো কার্যকর উদ্যোগই নেযা যায়নি। রাজধানীর গুলশানের ভাড়া বাড়ি থেকে চিকিৎসকের পরামর্শ নিচ্ছেন।

রবিবার তার সাথে দেখা করে আইনজীবী মাহবুব উদ্দিন খোকন জানান, চিকিৎসার জন্যই খালেদা জিয়ার মুক্তির মেয়াদ বাড়ানোর আবেদন করবে তার পরিবার। আর খালেদা জিয়ার মুক্তির মেয়াদ বাড়ানো হবে বলে তারা আশাবাদি বলেও জানান তিনি।
এদিকে, আইনমন্ত্রী আনিসুল হক বলছেন, খালেদা জিয়ার পরিবার আবেদন করলে তা পুনর্বিবেচনার সুযোগ আছে। আবেদন করার পর বিষয়টি দেখা হবে বলেও জানিয়েছেন তিনি। পরিবারের সদস্যরা ডিবিসি নিউজকে জানান, দল থেকে এখনো তাদের কিছু জানানো হয়নি। দল থেকে জানানোর পর পারিবারিকভাবে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে। সূত্র: ডিবিসি