Breaking News

অবহেলায় ৭ সন্তানের পিতা, পড়ে আছে ভাঙ্গা ঘরে



নাটোরের লালপুর উপজেলার ধুপইল মন্ডল পাড়া এলাকার বাসিন্দা দেলবার মল্লিক। সাত সন্তানের বাবা তিনি। ৭টি সন্তানের জনক হয়েও বিনা চিকিৎসায়, অবহেলায়, উলঙ্গ অবস্থায় ভাঙ্গা ঘরে একটি চৌকির ওপর পড়ে আছেন তিনি।

স্থানীয়রা জানায়, বেশ কিছুদিন থেকেই অসুস্থ দেলবার মল্লিক। তেমনভাবে চিকিৎসা করেনি কেউ। ভাঙ্গা ঘরের একটি চৌকির উপরে প্রায় উলঙ্গ ফেলে রেখেছে তার সন্তানেরা। বড় ছেলে আলমের জমি আছে, সে দয়ারামপুর বাজারে কুলির কাজ করে। বৃদ্ধ বাবাকে দেখে না। তার বাকি পাঁচ ছেলে আসাদুল, সাইফুল, হামিদুল, আশিক, সোহরাব কেউই বাপকে দেখে না। একমাত্র মেয়ের বিয়ে হয়ে গেছে।

দেলবারের প্রতিবেশীরা জানান, স্ত্রী মারা যাওয়ার পর সন্তানরা সে সমস্ত জমি ভাগ করে দিয়েছেন দেলবার। সেই জমি সন্তানরা চাষবাস করে সংসার চালায়। তবে বৃদ্ধ বাবাকে দেখাশোনা করে না কোন সন্তানই। অসহায় দেলবারের সুচিকিৎসার ব্যবস্থা করার জন্য প্রশাসনের কাছে অনুরোধ জানিয়েছেন স্থানীয়রা।