Breaking News

হাসপাতাল থেকে পালিয়েছে গর্ভবতী করোনা রোগী



যশোরের চৌগাছায় নতুন করে এক গর্ভবতী নারী (২৮) করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছে। তিনি উপজেলার পাশাপোল ইউনিয়নের বানুড়হুদা গ্রামের বাসিন্দা। এদিকে করোনা সন্দেহে নমুনা পাঠানোর পরই ওই নারী হাসপাতাল থেকে পালিয়ে গেছেন।

শনিবার (২৫ এপ্রিল) সকালে উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. লুৎফুন্নাহার দৈনিক শিক্ষাডটকমকে এ তথ্য নিশ্চত করেছেন।

এর আগে গত বুধবার চৌগাছা উপজেলায় দু’জন করোনা রোগী শনাক্ত হয়। এছাড়া শুক্রবার করোনা উপসর্গ নিয়ে এক বৃদ্ধের (৬০) মৃত্যু হয়।

চৌগাছা উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. লুৎফুন্নাহার দৈনিক শিক্ষাডটকমকে বলেন, গত বৃহস্পতিবার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স থেকে করোনা সন্দেহে তিনজনের নমুনা পাঠানো হয়। ওই নমুনা যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের জিনোম সেন্টারে শুক্রবার পরীক্ষা করা হয়। সেখান থেকে উপজেলার পাশাপোল ইউনিয়নের বানুড়হুদা গ্রামের ওই নারী করোনা রোগী হিসেবে শনাক্ত হয়েছেন। গর্ভবতী ওই নারীর সর্দি-কাশি ও গলাব্যাথা থাকায় তার নমুনা সংগ্রহ করে পাঠানো হয়।

তিনি দৈনিক শিক্ষাডটকমকে আরও বলেন, করোনা ভাইরাসের নমুনা পাঠানোর পরপরই ওই রোগী হাসপাতাল থেকে পালিয়ে গেছে।

বুধবার দুজন করোনা রোগী শনাক্ত হওয়ার পর চৌগাছা পৌরসভা এবং পরে বৃহস্পতিবার চৌগাছা উপজেলাকে লকডাউন করা হয়।